শব্দের চেয়েও ২০ গুণ দ্রুত গতির মিসাইল মোতায়েন রাশিয়ার

0

আন্তর্জাতিক ডেস্ক:

শব্দের চেয়েও ২০ গুণ দ্রুত গতির অ্যাভানগার্ড নামক মিসাইলের প্রথম রেজিমেন্ট মোতায়েন করেছে পরাক্রমশালী রাষ্ট্র রাশিয়া। দেশটির প্রতিরক্ষা মন্ত্রীর বরাতে বিবিসি এমন খবর দিয়েছে।

তবে কোথায় এই মিসাইল মোতায়েন করা হয়েছে, তা এখনো জানানো হয়নি। তবে এর আগে কর্মকর্তারা আভাস দিয়েছিলেন, উরালসে এটি মোতায়েন হবে।

রুশ প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন বলেছেন, এই পরমাণু অ’স্ত্র বহনে সক্ষম মিসাইলটি শব্দের চেয়েও ২০ গুণ বেশি গতিতে হাম’লা চালাতে পারবে। যা অন্য দেশগুলো থেকে রাশিয়াকে এগিয়ে রেখেছে।

কোনো রকম অতিরিক্তি শব্দ সৃষ্টি না করেই মসৃণভাবে এই মিসাইলটি উড়তে সক্ষম হবে। এতে এটা অ’প্রতিরোধ্য হয়ে উঠেছে। ইতিমধ্যে এই মিসাইলকে নিউক্লিয়ার নাইটমেয়ার বলে অভিহিত করা হচ্ছে। যার অর্থ- পারমাণবিক দুঃস্বপ্ন।

গতকাল ২৭ ডিসেম্বর স্থানীয় সময় ১০:০০ টায় অ্যাভানগার্ড হাইপারসনিক গ্লাইড ভেহিকল কার্যকর করা হয়েছে বলে জানিয়েছেন রুশ প্রতিরক্ষা মন্ত্রী সের্গেই সোয়গু। এটাকে ঐতিহাসিক বলে মন্তব্য করেন তিনি।

মঙ্গলবার পুতিন আরও বলেন, অ্যাভানগার্ড বর্তমান ও ভবিষ্যৎ মিসাইল ডিফেন্স সিস্টেম ভেদ করে আঘা’ত করতে পারবে। একমাত্র রাশিয়া ছাড়া এখন পর্যন্ত আর কোনো দেশের সমরাস্ত্র ভান্ডারে আন্তঃমহাদেশীয় দূরপাল্লার হাইপারসনিক অ’স্ত্র নেই।

তিনি বলেন, পশ্চিমা ও অন্যান্য দেশগুলো আমাদের সমান হওয়ার চেষ্টা করছে।

২০১৮ সালের মার্চে বার্ষিক রাষ্ট্রীয় অধিবেশনে ভাষণ দেয়ার সময় অ্যাভানগার্ড ও অন্যান্য অ’স্ত্র ব্যবস্থা সম্পর্কে তথ্য প্রদান করেন পুতিন। তখন এটাকে উল্কাপিণ্ড ও ফায়ারবলের সঙ্গে তুলনা করেন তিনি।

২০১৮ সালের ডিসেম্বরে দক্ষিণাঞ্চলীয় উরাল পর্বতমালার দমবারোভস্কি মিসাইল সাইলো থেকে ৬ হাজার কিলোমিটার নিশানায় পরীক্ষামূলক আঘা’ত হানে এই অ’স্ত্র।

এরপর পুতিন বলেন, বর্তমান ও ভবিষ্যতের কোনো মিসাইল ডিফেন্স সিস্টেম এই অ’স্ত্রকে আটকাতে পারবে না।

আন্তঃমহাদেশীয় দূরপাল্লার মিসাইল হিসেবে অ্যাভানগার্ড ২ মেগাটন পর্যন্ত নিউক্লিয়ার ওয়ারহেড বহন করতে পারবে। তবে যা বলা হচ্ছে, সেই অনুসারে এই অ’স্ত্রের কার্যকারিতা নিয়ে অ’স্ত্র বিশেষজ্ঞদের সন্দেহ রয়েছে।

শেয়ার করুন !
  • 269
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

এই ওয়েবসাইটের যাবতীয় লেখার বিষয়বস্তু, মতামত কিংবা মন্তব্য– লেখকের একান্তই নিজস্ব। somoyekhon.net-এর সম্পাদকীয় নীতির সঙ্গে এর মিল আছে, এমন সিদ্ধান্তে আসার কোনো যৌক্তিকতাই নেই। লেখকের মতামত, বক্তব্যের বিষয়বস্তু বা এর যথার্থতা নিয়ে somoyekhon.net আইনগত বা অন্য কোনো ধরনের কোনো প্রকার দায় বহন করে না।

Leave A Reply

error: Content is protected !!