‘শেখ মুজিবরে চিনবে না মানে? ওর বাপে চিনবে!’

0

মুক্তমঞ্চ ডেস্ক:

‘আরে ব্যাটা! করে দেখা না! বঙ্গবন্ধু ৪ বছরে যা করছে, ঐটাই করে দেখাক না কেউ! সর্বহারা পার্টি, ভাতহারা পার্টি, গণবাহিনী, এই বাহিনী, ঐ বাহিনী – প্রতিদিন খু’ন-হ’ত্যা, এরই মধ্যে ১৮ হাজার স্কুল-কলেজ, মাদ্রাসা বানানো, বোর্ড অফিস বানানো, রাস্তা-ঘাট, কালভার্ট বানানো, এই যে চিটাগাং পোর্ট, পুরাটা মাইন পোঁতা আছিলো, সেইগুলা সরানোর ব্যবস্থা করতে হইছে না? কী না করছে? এইটুকুই কেউ কইরা দেখাক না! আবার পটর পটর কথা বলে! ২ টাকার মেজর আছিলো, কিসের জিয়ার আদর্শ? জিয়ার আবার আদর্শ কী?

জিয়ার যদি কোন আদর্শ থাইকা থাকে, সেইটা হইলো আইউব খানের আদর্শ। সামনের শ’ত্রু চোখে দেখা যায়, পিছেরটা দেখা যায় না, এই জন্য পিছের শ’ত্রু সব সাফ করে ফেলাইছে জিয়া। যারে যখন মনে হইসে, ক্যু’ করতে পারে, তারেই সরায় দিছে, হাজার হাজার আর্মি হ’ত্যা করছে। ওর আবার আদর্শ কিসের রে? আজকে তোমরা বড় বড় কথা বলো? শেখের বংশ শেষ করে দিলো, দেশের ৩০ লাখ মানুষ মা’ইরা ফেললো, খাবারের জাহাজ ডুবায় দিলা, তখন তোমাগো মানবাধিকার কই থাকে? জিয়া হ্যাঁ ভোট-না ভোট করে দেশে, তখন সুষ্ঠু-আন্তর্জাতিক মান কই থাকে? এখন আসছো স্বচ্ছ কথা বলতে? পাকিস্থান ফেরত আর্মি-বাঙ্গালী স্বাধীনতা যু’দ্ধে অংশ নেয়া আর্মী-রক্ষীবাহিনী, শেখ মনি-তাজউদ্দিন-মুশতাক, সিরাজ শিকদার, জাসদ এতো এতো ঝামেলার মধ্যেও কোন দেশের প্রেসিডেন্টরে আনেনাই ২টা টাকার উপকারের জন্য? দেশের জন্য? কোন দেশে যায় নাই? দুনিয়ার কোন দেশে সম্মান পায় নাই? আবার বলে ‘৭১ এর পরে কী করছে!

‘৭১ এর পরে ৪ বছরে ধ্বং’সস্তুপ থেকে দেশটারে স্টার্ট দিয়া যট্টুক আগায় নিছে, বাকি সবাই মিল্যা ৪০ বছরে কী করছে? আজকে সামনের বিল্ডিঙটা ভা’ইঙ্গা পইড়া যাক নিশম, উঠাও তো? আমি তোমারে বললাম ১ সপ্তার মধ্যে এইখানে বসুন্ধরা মার্কেট বানায় দাও, পারবা? বিল্ডিং এর ভা’ঙ্গা ইট সরাইতেই তো তোমার ১ মাস যাবে গা! তো, শেখ মুজিবের থেইকা তোমরা কী আশা করো? জাদু দিয়া দেশ বানাবে? তোমরা কী করো? কীসের লেখালেখি করো এতো? কেন? তোমরা দাবী তুলতে পারো না, এই যে তোমাদের ইতিহাস বই এ মৌর্য, পাল এইসব ইতিহাস পড়ায়, কী লাভ? কী লাভ হবে এইটা দিয়া? ক্যান? এম আর আখতার মুকুলের মহাপুরুষ বইটা পাঠ্য করুক! এইটা থেকে ২০ নাম্বারের প্রশ্ন আসবে, ব্যবস্থা করুক! শেখ মুজিবরে চিনবে না মানে? ওর বাপে চিনবে! বাংলাদেশের মানচিত্র পারতে হবে, ২০ নাম্বার দিয়া পরীক্ষায় আসুক। দেশ চিনবে না মানে? জাতীয় সঙ্গীত মৌখিক পরীক্ষা নিবে। ক্যান বলো না এইসব? মুকুলের মহাপুরুষ বইটা নাইন টেনে পাঠ্য করুক। ভাষা আন্দোলন নিয়া ইতিহাসটা দরকার হইলে ৩ পার্ট করে ফাইভ সিক্স সেভেনে দিক। কেনো এইসব নিয়া লেখো না তোমরা?

২১টা বছর এই দেশে শেখ মুজিবের নাম নেয়া হারাম ছিলো, হারাম! জিয়া, এরশাদ, খালেদা’র এই ২১টা বছর। মানুষ আশা ছাইড়া দিছিলো, ইহজীবনে আর আওয়ামী লীগ কোনদিন ক্ষমতায় আসতে পারবে না। আসছে না? তোমরাই আনাইছো না? প্রজন্ম যতো লেখাপড়া করবে, বিবেকবান হবে, তারা বুঝবে, এই দেশটা মুজিবের হাতে গড়া দেশ, মুজিবের প্রতি যে ঋ’ণ সেইটা কোনদিন শো’ধ করা যাবে না, এইটা প্রজন্ম যতো শিক্ষিত হবে, যতো বই পড়বে, লেখাপড়া করবে, ততো বুঝতে পারবে। আর কোনদিন, আমি বইলা রাখলাম নিশম, আর কোনদিন, ইহজগতে বাংলাদেশে শেখ মুজিবরে মানে না, মুক্তিযু’দ্ধ মানে না, জাতীয় পতাকা মানে না, জাতীয় সঙ্গীত মানে না, এমন কেউ কোনদিন এই দেশের ক্ষমতায় আসতে পারবে না। আমি বললাম, তুমি লেইখা রাখো।’

নিশম সরকার-এর বাবা বলেছিলেন কয়েক বছর আগে কথাগুলো! আমি এই লোকটার পা ছুঁয়ে একবার সালাম করতে চাই নিশম। একবার বুকে জড়ায়ে ধরতে চাই। তোমার আব্বুর কথাগুলো পড়তে পড়তে মনে হচ্ছিল যেন আমার বাপের সাপ্তাহিক ভাষণ শুনতেছি এতো মিল ক্যামনে, ম্যান?

লেখক: রহমান রা’দ
পরিচিতি: ব্লগার, লেখক, অনলাইন অ্যাক্টিভিস্ট

শেয়ার করুন !
  • 29
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

এই ওয়েবসাইটের যাবতীয় লেখার বিষয়বস্তু, মতামত কিংবা মন্তব্য– লেখকের একান্তই নিজস্ব। somoyekhon.net-এর সম্পাদকীয় নীতির সঙ্গে এর মিল আছে, এমন সিদ্ধান্তে আসার কোনো যৌক্তিকতাই নেই। লেখকের মতামত, বক্তব্যের বিষয়বস্তু বা এর যথার্থতা নিয়ে somoyekhon.net আইনগত বা অন্য কোনো ধরনের কোনো প্রকার দায় বহন করে না।

Leave A Reply