সিটি নির্বাচনে অংশগ্রহণ নেয়ায় সিপিবির সাথে বাম জোটের বিরো’ধ

0

সময় এখন ডেস্ক:

ঢাকায় সিটি কর্পোরেশনের নির্বাচনে অংশ নেওয়াকে কেন্দ্র করে বাম গণতান্ত্রিক জোটে বিরো’ধ দেখা দিয়েছে। জোটের শরিক সিপিবি রাজনৈতিক লড়াইয়ের অংশ হিসেবে সিটি নির্বাচনে অংশ নেওয়ার ঘোষণা দিয়েছে।

জোটের বাকি ৬ দল ভোটে অংশ নিতে আপ’ত্তি জানিয়ে বলছে, সরকারের অনুগত নির্বাচন কমিশনের (ইসি) অধীনে নির্বাচনে যাওয়ার কোনো সুযোগই নেই। বিরো’ধিতাকারী দলগুলো হলো- বাসদ, বিপ্লবী ওয়ার্কার্স পার্টি, বাসদ (মার্ক্সবাদী), গণসংহতি আন্দোলন, ইউনাইটেড কমিউনিস্ট লীগ ও গণতান্ত্রিক বিপ্লবী পার্টি।

গত বৃহস্পতিবার বাংলাদেশের কমিউনিস্ট পার্টি (সিপিবি) সংবাদ সম্মেলনে দুই সিটি নির্বাচনে অংশ নেওয়ার কথা জানায়। এদিন দলটি ঢাকা উত্তরে সাজেদুল হক রুবেলকে এবং ঢাকা দক্ষিণে মানবেন্দ্র দেবকে মেয়র প্রার্থী ঘোষণা করে।

সিটি নির্বাচনে অংশগ্রহণের বিষয়ে রোববার সিপিবি কার্যালয়ে বৈঠকে বসেন বাম গণতান্ত্রিক জোট নেতারা। বৈঠক শেষে জোটের সমন্বয়ক ও বিপ্লবী ওয়ার্কার্স পার্টির সাধারণ সম্পাদক সাইফুল হক সাংবাদিকদের বলেন, নির্বাচনে সিপিবির অংশ নেওয়ার সিদ্ধান্তের বিরো’ধিতা করেছে জোটের অন্য দলগুলো।

জোটের নেতারা মনে করছেন, এ নির্বাচনে যাওয়ার কোনো সুযোগ নেই। সাধারণ মানুষের ভোটাধিকার প্রয়োগ প্রশ্নে নির্বাচন কমিশন কোনো আস্থা তৈরি করতে পারেনি। গত ৩০ ডিসেম্বর সরকারের ভোট ডাকা’তির প্রধান সহযোগী ছিল নির্বাচন কমিশন।

সাইফুল হক আরও বলেন, সিপিবির এই অংশগ্রহণ আমাদের ঐক্য বা সংহতির ক্ষেত্রে প্রত্যক্ষ বা পরোক্ষভাবে প্রভাব ফেলবে।

সিপিবি সভাপতি মুজাহিদুল ইসলাম সেলিম এ বিষয় সাংবাদিকদের বলেন, ৩১ ডিসেম্বরের আগে সিপিবি নির্বাচনে অংশগ্রহণের বিষয়ে চূড়ান্ত কথা বলবে না। তবে তাদের সব ধরনের প্রস্তুতি নেওয়া আছে সাইফুল হকের মন্তব্যের বিষয়ে তিনি বলেন, সিপিবি নির্বাচনে অংশ নিলেও গণতান্ত্রিক বাম জোটের ঐক্যে কোনো সমস্যা হবে না।

তাপসের আসন শূন্য ঘোষণা করা হলো

ঢাকা সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনে মেয়র পদে আওয়ামী লীগের মনোনয়ন পেয়েছেন শেখ ফজলে নূর তাপস। এরপর তিনি জাতীয় সংসদ থেকে পদ’ত্যাগ করায় তার সংসদীয় আসনটি শূন্য ঘোষণা করে গেজেট প্রকাশ করেছে সংসদ সচিবালয়।

রোববার দুপুর দেড়টার দিকে স্পিকার শিরীন শারমিন চৌধুরীর কাছে পদ’ত্যাগপত্রের চিঠি দেন সংসদ সদস্য তাপস। এর কয়েক ঘণ্টা পর একাদশ জাতীয় সংসদের ১৮৩, ঢাকা-১০ আসন শূন্য ঘোষণা করা হয়।

স্থানীয় সরকার (সিটি কর্পোরেশন) আইনে সংসদ সদস্যরা মেয়র পদে ভোটের অযোগ্য হবেন। সেক্ষেত্রে মেয়র পদে প্রার্থী হতে হলে সংসদ সদস্য পদ ছেড়ে মনোনয়নপত্র জমা দিতে হবে।

শেয়ার করুন !
  • 55
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

এই ওয়েবসাইটের যাবতীয় লেখার বিষয়বস্তু, মতামত কিংবা মন্তব্য– লেখকের একান্তই নিজস্ব। somoyekhon.net-এর সম্পাদকীয় নীতির সঙ্গে এর মিল আছে, এমন সিদ্ধান্তে আসার কোনো যৌক্তিকতাই নেই। লেখকের মতামত, বক্তব্যের বিষয়বস্তু বা এর যথার্থতা নিয়ে somoyekhon.net আইনগত বা অন্য কোনো ধরনের কোনো প্রকার দায় বহন করে না।

Leave A Reply

error: Content is protected !!