মেলা থেকে ২টি বই প্র’ত্যাহারের নির্দেশ হাইকোর্টের

0

আইন আদালত ডেস্ক:

দিয়া আরেফিনের লেখা নানীর বানীসহ ২টি বই বিক্রি বন্ধ ও জ’ব্দের নির্দেশ দিয়েছেন হাইকোর্ট। এ বই দুটি বইমেলা থেকে প্র’ত্যাহারের নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

বিচারপতি এম ইনায়েতুর রহিম ও বিচারপতি মোঃ মোস্তাফিজুর রহমানের হাইকোর্ট বেঞ্চ আজ বুধবার এ আদেশ দেন। ধর্মীয় অনুভূতিতে আঘা’ত দেওয়া ও বিদ্বে’ষমূলক কথা থাকার অভিযোগ এনে সুপ্রিম কোর্টের আইনজীবী আজহার উল্লাহ ভুইয়ার করা এক আবেদনে আদালত এ আদেশ দেন।

অ্যাডভোকেট আজহার উল্লাহ জানান, বইটি মানুষের ধর্মীয় বিশ্বাস, ব্যক্তি স্বাধীনতায় আঘা’ত করেছে। আইনজীবীদের পক্ষে বিষয়টি আদালতের নজরে এনেছি। আদালত বিষয়টি আমলে নিয়ে আদেশ দেন। আদেশে বই দুইটির প্রকাশনা ও বিক্রি নিষি’দ্ধ করেন।

একুশের বইমেলা থেকে বই দুইটি সরিয়ে নিতে বাংলা একাডেমির ডিজিকে নির্দেশ দেয়া হয়েছে। এ বিষয়ে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিতে স্বরাষ্ট্র সচিব, ডিসি-এসপি ঢাকা ও নারায়ণগঞ্জকে নির্দেশ দেয়া হয়েছে বলে জানান আইনজীবী আজহার উল্লাহ।

একুশে পদকে বানান ভুল: তদন্ত কমিটি গঠনের নির্দেশ জারি

‘একুশে পদক-২০২০’ এর পদকের ওপর কীভাবে ভুল বানান মুদ্রণ করা হলো, তা খতিয়ে দেখতে ৩ সদস্যের একটি কমিটি গঠনের নির্দেশ জারি করেছে সংস্কৃতিবিষয়ক মন্ত্রণালয়।

আজ রবিবার এই নির্দেশ জারি করা হয়। কমিটি যদি পদকের বানানের ভুলকে গুরুতর বিষয় হিসেবে অভিহিত করে, তবে পদকপ্রাপ্তদের কাছ থেকে পদক সংগ্রহ করে সেগুলো সঠিক বানানে মুদ্রণ করে আবার ফেরত দেওয়া হবে।

আদেশে জানানো হয়, গত ২৪ ফেব্রুয়ারি ২০২০ তারিখে বিভিন্ন গণমাধ্যমে একুশে পদকের বানান ভুল নিয়ে সংবাদ প্রকাশিত হওয়ার প্রেক্ষিতে তদন্তের জন্যে এ নির্দেশ জারি করা হলো।

সংস্কৃতিবিষয়ক মন্ত্রণালয়ের যুগ্মসচিব মো. শওকত আলীকে সভাপতি, যুগ্মসচিব হাসনা জাহান খানমকে সদস্য এবং সিনিয়র সহকারী সচিব জেসমিন নাহারকে সদস্য সচিব করে এ কমিটি গঠনে অফিস আদেশ জারি করা হয়েছে।

তদন্ত কমিটি গঠনের বিষয়টি গতকাল মঙ্গলবার নিশ্চিত করে সংস্কৃতি প্রতিমন্ত্রী কে এম খালিদ বলেন, একুশে পদকের বানানে কেন এমন হলো তা খতিয়ে দেখতে তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়েছে। কমিটির প্রতিবেদন পাওয়ার পর আমরা পরবর্তী পদক্ষেপ গ্রহণ করব। কমিটির সদস্যরা পদকপ্রাপ্তদের সঙ্গে যোগাযোগ করে পদক দেখে পদক্ষেপ গ্রহণের জন্য সুপারিশ করবে।

শেয়ার করুন !
  • 178
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

এই ওয়েবসাইটের যাবতীয় লেখার বিষয়বস্তু, মতামত কিংবা মন্তব্য– লেখকের একান্তই নিজস্ব। somoyekhon.net-এর সম্পাদকীয় নীতির সঙ্গে এর মিল আছে, এমন সিদ্ধান্তে আসার কোনো যৌক্তিকতাই নেই। লেখকের মতামত, বক্তব্যের বিষয়বস্তু বা এর যথার্থতা নিয়ে somoyekhon.net আইনগত বা অন্য কোনো ধরনের কোনো প্রকার দায় বহন করে না।

Leave A Reply