ময়মনসিংহে মুজিব কোট নিয়ে শিক্ষা কর্মকর্তার ‘আলগা বাণিজ্য’

0

ময়মনসিংহ প্রতিনিধি:

ময়মনসিংহের তারাকান্দা উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা কর্মকর্তার বিরু’দ্ধে মুজিব কোটের নামে অর্থ হাতিয়ে নেয়ার চেষ্টার অভিযোগ উঠেছে। এ নিয়ে শিক্ষকগণের মাঝে চরম অ’সন্তোষ দেখা দিয়েছে।

সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা গেছে, তারাকান্দা উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা কর্মকর্তা নিলুফার হাকিম মুজিব শতবর্ষ উদযাপনে সব বিদ্যালয়কে স্লিপ বরাদ্দের টাকায় তার কাছ থেকে ১২টি করে মুজিব কোট নেয়া বাধ্যতামূলক করেছেন। যার বাজার মূল্য অনধিক ৮ হাজার টাকা হলেও তিনি নিচ্ছেন ১৫ হাজার ৬০০ টাকা করে।

এতে উপজেলার ১৪১টি বিদ্যালয় থেকে প্রায় ১১ লাখ টাকা হাতিয়ে নেয়ার সম্ভাবনা দেখা দিয়েছে। বিষয়টি নিয়ে শিক্ষকদের মধ্যে চরম অ’সন্তোষ বিরাজ করলেও হয়রা’নির ভ’য়ে কেউ মুখ খোলার সাহস পাচ্ছেন না।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক একাধিক শিক্ষক জানান, আশেপাশের অন্য কোনো উপজেলায় এ ধরনের নিয়ম না থাকলেও শিক্ষা অফিসার নিজে লাভবান হওয়ার জন্য অতি উৎসাহী হয়ে আমাদের মুজিব কোট নিতে বাধ্য করছেন।

এ বিষয়ে উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা কর্মকর্তা নিলুফার হাকিম জানান, মুজিববর্ষ সুন্দরভাবে উদযাপন করতে ইউনিয়ন কমিটির সঙ্গে আলোচনা করে এ সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে।

প্রাথমিক শিক্ষা ময়মনসিংহের বিভাগীয় উপ-পরিচালক মো. আনোয়ার হোসেন জানান, এ ধরনের কোনো নিয়ম নেই। এ বিষয়ে অভিযোগ পেলে ব্যবস্থা নেয়া হবে।

প্রাথমিক শিক্ষকদের প্রতি শিক্ষা অধিদপ্তরের সতর্ক বার্তা

দেশে ৩ জন করোনা রোগী শনাক্তের খবর ছড়িয়ে পড়ায় উৎ’কণ্ঠা দেখা দেয় সকল শিক্ষা-প্রতিষ্ঠানগুলোয়। এমন অবস্থায় বেশ উদ্বি’গ্ন শিক্ষক-শিক্ষার্থীসহ অভিভাবকরাও।

এই পরিস্থিতিতে প্রাথমিক বিদ্যালয়গুলোর সংশ্লিষ্ট সবাইকে সতর্ক থাকার নির্দেশ দিয়েছে প্রাথমিক শিক্ষা অধিদপ্তর। প্রাথমিকের কর্মকর্তা ও শিক্ষকদের করোনা পরিস্থিতি মোকাবেলায় কয়েক দফা নির্দেশনাও দিয়েছিলো অধিদপ্তর।

প্রাথমিক শিক্ষা অধিদপ্তর থেকে এ বিষয়ে একটি নির্দেশনা জারি করা হয়। নির্দেশনায় কোভিড-১৯ মোকাবেলায় সন্দেহভাজন রোগীর জন্য করণীয় কিছু তথ্য তুলে ধরা হয়েছে।

সতর্ক বার্তায় বলা হয়েছে, সরকার ইতোমধ্যে করোনা ভাইরাস মোকাবেলা ও আক্রা’ন্ত রোগীদের চিকিৎসার্থে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করেছে। এ মুহূর্তে সবার সতর্কতা ও সচেতনতা প্রয়োজন।

অধিদপ্তরের সব অফিস ও শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের সকল কর্মকর্তা-কর্মচারী ও শিক্ষকসহ সংশ্লিষ্ট সবাইকে এ পরিস্থিতিতে সতর্ক থেকে আইসিডিডিআর এর পরামর্শ ও নির্দেশনা মেনে চলতে অনুরোধ করা হল।

একই সঙ্গে রোগতত্ত্ব, রোগনিয়ন্ত্রণ ও গবেষণা ইনস্টিটিউটের (আইইডিসিআর) এর ওয়েবসাইটে প্রকাশিত করোনা ভাইরাসের তথ্য সম্বলিত নির্দেশনা ও পরামর্শ অনুসরণ করতে প্রাথমিকের শিক্ষক-কর্মকর্তাদের অনুরোধও করা হয়েছে।

শেয়ার করুন !
  • 18
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

এই ওয়েবসাইটের যাবতীয় লেখার বিষয়বস্তু, মতামত কিংবা মন্তব্য– লেখকের একান্তই নিজস্ব। somoyekhon.net-এর সম্পাদকীয় নীতির সঙ্গে এর মিল আছে, এমন সিদ্ধান্তে আসার কোনো যৌক্তিকতাই নেই। লেখকের মতামত, বক্তব্যের বিষয়বস্তু বা এর যথার্থতা নিয়ে somoyekhon.net আইনগত বা অন্য কোনো ধরনের কোনো প্রকার দায় বহন করে না।

Leave A Reply

error: Content is protected !!