এবার স্বাস্থ্যমন্ত্রীকে ধুয়ে দিলেন নিজ দলেরই দুই এমপি

0

বিশেষ প্রতিবেদন:

স্বাস্থ্যমন্ত্রীর সমালোচনায় মুখর সরকারী দলের লীগের প্রভাবশালী দুই এমপি একরামুল করিম চৌধুরী এবং শামীম ওসমান। দুজনই বেসরকারি টিভি চ্যানেল নিউজ ২৪ এর জনতন্ত্র গণতন্ত্র অনুষ্ঠানে এসে স্বাস্থ্যমন্ত্রীকে ধুয়ে দিলেন।

তারা স্বাস্থ্যমন্ত্রীর তীব্র সমালোচনা করলেন। স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের অ’যোগ্যতা, দায়িত্বহীনতারও সমালোচনা করলেন। এমপি একরাম চৌধুরী তার বক্তব্যে মিঠু সিন্ডিকেট বিষয়ে সমালোচনা করে বলেন, স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় কেন এই মিঠুর বিরু’দ্ধে কোন ব্যবস্থা নিচ্ছে না?

কেন করোনা মোকাবেলায় স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় ব্যর্থ হচ্ছে তা উল্লেখ করে একরাম চৌধুরী জানালেন, তার এলাকায় ২ সপ্তাহ ধরে কোভিড কিট পাওয়া যাচ্ছে না। স্বাস্থ্য মন্ত্রীকে ব্যর্থ এবং অ’যোগ্য মন্ত্রী হিসেবে চিহ্নিত করলেন। আওয়ামী লীগের স্বার্থে তাকে সরিয়ে দেওয়ার দাবি জানালেন।

একইভাবে নারায়ণগঞ্জের প্রভাবশালী এমপি শামীম ওসমান তার বক্তব্যে বললেন, স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় কোন সমস্যার সমাধান করেনি। প্রধানমন্ত্রী সেখান কোভিড পরীক্ষা করার জন্য ল্যাব স্থাপন করার কথা বলেছেন। তারপর তিনি স্বাস্থ্যমন্ত্রী এবং অধিদপ্তরের কর্মকর্তাদের একের পর এক ফোন করে তিনি ক্লান্ত হয়েছেন বলে জানান। এরপর তিনি প্রধানমন্ত্রীর মুখ্য সচিব ড. আহমেদ কায়কাউস, প্রধানমন্ত্রীর সচিব তোফাজ্জেল হোসেন এবং এসএসএফ প্রধানকে ফোন করলে তারা আমার সমস্যার সমাধান করেন।

তিনি বলেন, তারা যদি ২৪ ঘন্টার মধ্যে পারে তাহলে স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় পারেনি কেন? কারণ তারা অ’যোগ্য। অথবা তারা স্যাবোটাজ করছেন।

‘করোনা নিয়ে বিএনপি ও কিছু বিশেষজ্ঞের ধারণা ভুল প্রমাণিত’

তথ্যমন্ত্রী ও আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ড. হাছান মাহমুদ বলেছেন, সরকারের সময়োচিত পদক্ষেপের কারণেই করোনা পরিস্থিতি নিয়ে বিএনপি ও কিছু বিশেষজ্ঞের ধারণা ভুল প্রমাণ হয়েছে।

বুধবার (২৪ জুন) সচিবালয়ে নিজ দপ্তর থেকে ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে করোনা পরিস্থিতি নিয়ে চট্টগ্রাম বিভাগের চতুর্থ সমন্বয় সভায় সভাপতির বক্তব্যে তিনি একথা বলেন।

মন্ত্রী বলেন, আজকে বাংলাদেশ ৩ মাসের বেশি সময় ধরে প্রায় সবকিছু বন্ধু। এখন সীমিত আকারে খুললেও সবকিছু চালু হয়নি। সরকারের সঠিক এবং সময়োচিত পদক্ষেপ ও একইসাথে ব্যাপক ত্রাণ তৎপরতার কারণেই ৩ মাসে বাংলাদেশে একজন মানুষও না খেয়ে মা’রা যায়নি। দেশে কোথাও খাদ্যের জন্য হাহাকার নেই। খাদ্যের জন্য হাহাকারের সম্ভাবনা নিয়ে অনেক বিশেষজ্ঞ মত দিয়েছেন, তাদের সেই মত ভুল প্রমাণিত হয়েছে। চিকিৎসাসেবার ক্ষেত্রেও সরকার অনেক পদক্ষেপ গ্রহণ করেছে এবং আরো নতুন নতুন পদক্ষেপ নেয়া হচ্ছে এবং এগুলো ক্রমান্বয়ে বৃদ্ধি করা হচ্ছে। আমরা যদি এভাবে এগিয়ে যেতে পারি, পরম সৃষ্টিকর্তার আর্শিবাদে আমরা এই করোনা নিয়ন্ত্রণ করতে পারবো।

চিকিৎসা শুধু ধনাঢ্য ব্যক্তিদের জন্য নয়, চিকিৎসা সবার জন্য এবং সরকার সেটি নিশ্চিত করেছে উল্লেখ করে ড. হাছান মাহমুদ বলেন, সরকার ঢাকা, চট্টগ্রামসহ সারা দেশে জেনারেল হাসপাতালসহ বিভিন্ন হাসপাতালে সামর্থ্য অনুযায়ী সমস্ত মানুষের জন্য চিকিৎসা নিশ্চিত করেছে।

শেয়ার করুন !
  • 883
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

এই ওয়েবসাইটের যাবতীয় লেখার বিষয়বস্তু, মতামত কিংবা মন্তব্য– লেখকের একান্তই নিজস্ব। somoyekhon.net-এর সম্পাদকীয় নীতির সঙ্গে এর মিল আছে, এমন সিদ্ধান্তে আসার কোনো যৌক্তিকতাই নেই। লেখকের মতামত, বক্তব্যের বিষয়বস্তু বা এর যথার্থতা নিয়ে somoyekhon.net আইনগত বা অন্য কোনো ধরনের কোনো প্রকার দায় বহন করে না।

Leave A Reply

error: Content is protected !!