শিক্ষক দিবসে সিদ্ধিরগঞ্জে মাদ্রাসা শিক্ষক মাওলানা শহিদুল্লাহ গ্রেপ্তার

0

নারায়ণগঞ্জ প্রতিনিধি:

শিক্ষকরা সুনগারিক গড়ে তোলার কারিগর। কিন্তু শিক্ষক দিবসেই জানা গেল এক অ’নাচারের খবর। নারায়ণগঞ্জের সিদ্ধিরগঞ্জে ঘুমের ওষুধ খাইয়ে গত ১৫ দিন ধরে এক মাদ্রাসা ছাত্রকে ব’লাৎকা’রের তথ্য পাওয়া গেছে তারই শিক্ষক মাওলানা শহিদুল্লাহর (৪৫) বিরু’দ্ধে।

অভিযুক্ত শিক্ষককে আটক করেছে পুলিশ। সিদ্ধিরগঞ্জে মিজমিজি পাইনাদী নতুন মহল্লা এলাকায় অবস্থিত একটি মাদ্রাসার শিক্ষক মাওলানা শহিদুল্লাহ। আগেও এক ছাত্রের সাথে একই ধরণের অপ’কর্মের অভিযোগ ছিল তার নামে।

ওই মাদ্রাসা ছাত্রের পরিবার জানায়, রোববার ছেলেটি মাদ্রাসা থেকে পালিয়ে বাড়িতে চলে আসে। পরে তার কাছ থেকে ঘটনা জানতে পারেন অভিভাবকরা।

ওই ছাত্র বাসায় গিয়ে জানায়, গত ১৫ দিন ধরে ঘুম পাড়ানোর ওষুধ খাইয়ে মাদ্রাসার শিক্ষক মাওলানা শহিদুল্লাহ তার সাথে খারাপ কাজ করে আসছে। ব্যথা কমাতে তাকে আরো একটি ওষুধ সেবন করান তিনি। ছাত্রটি আধো ঘুমের ঘোরে থাকলেও সে বুঝতে পারে, কী ঘটছে।

এটা যেন কোনোভাবেই কাউকে বলে দিতে না পারে, সেজন্য ছাত্রকে কোরআন এর শপথ, আল্লাহর নামে শপথ ছাড়াও বিভিন্নরকম ভ’য় দেখাতেন মাওলানা শহিদুল্লাহ। এমনকি এসব কথা কাউকে বলে দিলে রাত বিরেতে খারাপ জ্বীন এসে তার ক্ষ’তি করবে বলেও মাওলানা শহিদুল্লাহ ছাত্রটিকে সাবধান করে দেন।

এদিকে এ ঘটনা জানাজানি হলে স্থানীয়রা ব্যাপক ক্ষু’ব্ধ প্রতিক্রিয়া দেখান। এলাকাবাসী জানায়, মাদ্রাসা শিক্ষক মাওলানা শহিদুল্লাহর এ ধরণের অভ্যাস মাদ্রাসা কর্তৃপক্ষ জানে। এ নিয়ে এর আগেও তার নামে একই বিষয়ে অভিযোগ আসে। তাকে মাদ্রাসা থেকে বের করে দেয়ার জন্য চাপ দেয়া হয়। তবুও মাদ্রাসা পরিচালনা কমিটি বিষয়টি নিয়ে ধামাচাপা দিয়ে চুপ হয়ে যায়। মাওলানা শহিদুল্লাহও বহাল তবিয়তে এখানে চাকরি করে যাচ্ছেন। তার ব্যাপারে মাদ্রাসার মুহতাতিমের বিশেষ আনুকূল্য আছে বলে জানান স্থানীয়রা।

এদিকে এ ব্যাপারে সিদ্ধিরগঞ্জ থানার উপপরিদর্শক (এসআই) ফয়সাল আলম জানান, অভিযোগ পাওয়ার পর মাদ্রাসা শিক্ষক মাওলানা শহিদুল্লাহকে আটক করে থানায় আনা হয়েছে। পরবর্তী আইনানুগ কার্যক্রম প্রক্রিয়াধীন রয়েছে।

শেয়ার করুন !
  • 1.1K
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

এই ওয়েবসাইটের যাবতীয় লেখার বিষয়বস্তু, মতামত কিংবা মন্তব্য– লেখকের একান্তই নিজস্ব। somoyekhon.net-এর সম্পাদকীয় নীতির সঙ্গে এর মিল আছে, এমন সিদ্ধান্তে আসার কোনো যৌক্তিকতাই নেই। লেখকের মতামত, বক্তব্যের বিষয়বস্তু বা এর যথার্থতা নিয়ে somoyekhon.net আইনগত বা অন্য কোনো ধরনের কোনো প্রকার দায় বহন করে না।

Leave A Reply

error: Content is protected !!