অপরাধীদের অন্য কোনো পরিচয় থাকতে পারে না: তথ্যমন্ত্রী

0

সময় এখন ডেস্ক:

অপরাধীদের অন্য কোনো পরিচয় থাকতে পারে না বলে মন্তব্য করেছেন তথ্যমন্ত্রী ও আওয়ামী লীগের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক ড. হাছান মাহমুদ।

সোমবার (৫ অক্টোবর) তথ্য মন্ত্রণালয়ের সভাকক্ষে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার জীবনভিত্তিক শিশুতোষ গ্রন্থ ‘আমি হবো আগামী দিনের শেখ হাসিনা’ এর প্রকাশনা অনুষ্ঠানে শেষে তিনি এ মন্তব্য করেন।

‘সরকারের জবাবদিহিতার অভাবে অপরাধ বাড়ছে’- এমন প্রশ্নে ড. হাছান মাহমুদ বলেন, প্রথমত, যারা এ ধরনের অপ’কর্মের সঙ্গে জড়িত, তারা হচ্ছে দু’ষ্কৃতিকারী। তাদের কোনো অন্য পরিচয় থাকতে পারে না। সরকার এদের কঠোর হস্তে দ’মন করতে বদ্ধপরিকর।

তিনি বলেন, ইতোপূর্বেও এ ধরনের যেসব ঘটনা ঘটেছে তার অনেকগুলোর দৃষ্টান্তমূলক সাজা হয়েছে, অনেক সাজা কার্যকরও করা হয়েছে।

তথ্যমন্ত্রী বলেন, এ ধরনের ঘটনা যে আগে ঘটে নাই তা নয়, আগেও ঘটতো। কিন্তু আগে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমের এমন ব্যাপকতা ছিল না। তাই অনেক ঘটনাই আড়ালে থেকে যেতো। এখন বেশিরভাগ ঘটনা আড়ালে থাকে না। প্রায় সব ঘটনাই প্রকাশ্যে আসে। এ বিষয়টি ভালো। তাই যারা সমাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে এ বিষয়গুলো তুলে ধরছেন তাদেরকে ধন্যবাদ জানাই।

তিনি বলেন, এতে করে সরকারের পক্ষ থেকে, প্রশাসনের পক্ষ থেকে অপ’কর্মকারীদের বিরু’দ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণ করা সহজতর হচ্ছে। এ ধরনের দু’ষ্কৃতিকারীরা যে পরিচয়ই ব্যবহার করার চেষ্টা করুক না কেন, তাদেরকে কঠোর হস্তে দ’মন করার জন্য সরকার বদ্ধপরিকর। এগুলো নিয়ে রাজনীতি করার কোনো অবকাশ নেই।

এমন ঘটনা দেখে হাড়-রক্ত শীতল হয়ে যায়: রিজভী

বিএনপির জ্যেষ্ঠ যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী বলেছেন, এমসি কলেজে, পাহাড়ি নারীর ওপরসহ বিভিন্ন জায়গার পৈ’শাচিকতা দেখেছি। এগুলো তো প্রতিদিন হচ্ছে। শরীরের রক্ত এবং হাড় শীতল হয়ে যায় এসব কাহিনী শুনলে।

সোমবার (৫ অক্টোবর) দুপুরে জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে জাতীয়তাবাদী স্বেচ্ছাসেবক দল আয়োজিত ‘বিএনপির প্রতিষ্ঠাতা ও সাবেক রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমানের বিরু’দ্ধে ইতিহাস বি’কৃত করে নাটক নির্মাণের প্রতিবাদে’ এক মানববন্ধনে রিজভী এসব কথা বলেন।

তিনি বলেন, নোয়াখালীর বেগমগঞ্জের ঘটনাটি- সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে যে ভিডিওটা ভাইরাল হয়েছে, সে ঘটনার সঙ্গেও ক্ষমতাসীন দলের নেতাকর্মীরা জড়িত। আমার প্রশ্ন হচ্ছে, ঘটনাটি ঘটেছে ২ সেপ্টেম্বর, অর্থাৎ ১ মাসের বেশি সময় আগে। গতকাল কেন এটা ভাইরাল হলো? এটা তো একটা বিরাট প্রশ্ন? এর কারণ কী?

নোয়াখালীর ঘটনাটির প্রসঙ্গ উল্লেখ করে বিএনপি নেতা বলেন, বাক রহিত হয়ে যায়, কণ্ঠস্বর স্ত’ব্ধ হয়ে যায়। যাকেই জিজ্ঞেস করেছি আপনি কি এই ঘটনা দেখেছেন? সেই বলেছে, একটু দেখে আর দেখতে পারি নাই।

শেয়ার করুন !
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

এই ওয়েবসাইটের যাবতীয় লেখার বিষয়বস্তু, মতামত কিংবা মন্তব্য– লেখকের একান্তই নিজস্ব। somoyekhon.net-এর সম্পাদকীয় নীতির সঙ্গে এর মিল আছে, এমন সিদ্ধান্তে আসার কোনো যৌক্তিকতাই নেই। লেখকের মতামত, বক্তব্যের বিষয়বস্তু বা এর যথার্থতা নিয়ে somoyekhon.net আইনগত বা অন্য কোনো ধরনের কোনো প্রকার দায় বহন করে না।

Leave A Reply

error: Content is protected !!