বাসে আগুন দিয়েছে যুবদল, নিতাই-ফরিদার ফোনালাপ প্রকাশিত (অডিও)

0

সময় এখন ডেস্ক:

হঠাৎ করে রাজধানীর ঢাকায় বিভিন্ন জায়গায় বাসে আগুন দেওয়া হয়েছে। ঘটনার পর এ বিষয়ে একটি ফোনালাপ প্রকাশিত হয়েছে। যা আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর হাতে এসেছে।

নয়াপল্টনে বিএনপি অফিসের সামনে যে গাড়িতে আগুন দেওয়া হয়েছে তাতে যুবদলের কথা উঠে এসেছে। আগুন দেওয়ার বিষয়টি বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান নিতাই রাই চৌধুরীকে অবহিত করেন দলটির এক নেত্রী ফরিদা ইয়াসমিন। যা ফোনালাপে উঠে এসেছে।

ফোনালাপটি তুলে ধরা হলো:

ফরিদা: দাদা আদাব। আমি ফরিদা বলছি। পার্টি অফিসে তো আমি আটকা পড়েছিলাম এতক্ষণ। ওই যে গাড়ি পুড়াইছে ছেলেপেলে, ১১টার সময় আসছি প্রেস কনফারেন্সে। এখন তো এখানে আটকা পড়ে দেরি হয়ে গেলো।

নিতাই: গাড়ি পুড়াই ফেলছে?
ফরিদা: হ্যাঁ…হ্যাঁ…।
নিতাই: কোন জায়গা?
ফরিদা: এই যে পার্টি অফিসের সামনেই, স্টাফ গাড়ি পুড়াইছে। র‌্যাব, পুলিশ সব পুড়া পার্টি অফিস ঘেরাও দিয়ে রাখছে।

নিতাই: গাড়ি কোনটা পুড়াইছে?
ফরিদা: স্টাফ…পুলিশের স্টাফ গাড়ি থাকে না? ওগুলোর মধ্যে আগুন দিছে যুবদলের ছেলেরা।
নিতাই: কয়টা, কয়টা, গাড়ি?
ফরিদা: পার্টি অফিসের সামনেই। একটা গাড়ি।

ঢাকায় দুপুরের দিকে হঠাৎ ৬টি বাসে আগুন দেয় দু’র্বৃত্তরা। দুপুর সাড়ে ১২টা থেকে দেড়টার মধ্যে পৃথক পৃথক এলাকায় এসব বাসে আগুন দেওয়া হয়। পরে আরও ৩টি বাস পোড়ানোর তথ্য পাওয়া গেছে।

নয়াপল্টন, গুলিস্তান, প্রেসক্লাব, শাহজাহানপুর, শাহবাগ, বংশালে এই আগুন দেওয়া হয়। ঘটনার পর রাজধানীর নিরাপত্তা জোরদার করা হয়েছে। সতর্ক অবস্থানে রয়েছে পুলিশ।

মতিঝিলে স্থানীয় দোকানদার এবং প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, বিএনপি এবং অঙ্গ সংগঠনের কিছু চিহ্নিত স্থানীয় ক্যাডাররা এ ঘটনা ঘটিয়েছে। এদেরকে প্রায়ই বিএনপির মিছিল মিটিংয়ে সামনের সারিতে দেখা যায়। গত বছর পুলিশের গাড়িতে আগুন দেয়ার ঘটনাতেও এদের কয়েকজন জড়িত ছিল দাবি করেন স্থানীয়রা।

এ বিষয়ে জানতে যোগাযোগ করা হলে ঢাকা মহানগর পুলিশের মিডিয়া অ্যান্ড পাবলিক রিলেশনস বিভাগের উপ-কমিশনার (ডিসি) মো. ওয়ালিদ হোসেন বলেন, নিঃসন্দেহে সহিং’সতার উদ্দেশেই পার্কিং করা সরকারি যানবাহনে এবং রাস্তায় চলমান গণপরিবহনে আগুন দেয়া করা রয়েছে।

ডিবিসি চ্যানেলের সৌজন্যে অডিও আলাপ:

শেয়ার করুন !
  • 954
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

এই ওয়েবসাইটের যাবতীয় লেখার বিষয়বস্তু, মতামত কিংবা মন্তব্য– লেখকের একান্তই নিজস্ব। somoyekhon.net-এর সম্পাদকীয় নীতির সঙ্গে এর মিল আছে, এমন সিদ্ধান্তে আসার কোনো যৌক্তিকতাই নেই। লেখকের মতামত, বক্তব্যের বিষয়বস্তু বা এর যথার্থতা নিয়ে somoyekhon.net আইনগত বা অন্য কোনো ধরনের কোনো প্রকার দায় বহন করে না।

Leave A Reply