কানাডায় বিডিক্যান্স-এর “আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস” উদযাপন

0

প্রবাস ডেস্ক:

গত ২১ ফেব্রুয়ারী, ২০২১ বাংলাদেশ কমিউনিটি অ্যাসোসিয়েশন অফ নোভাস্কসিয়া (বিডিক্যান্স) এর উদ্যোগে উদযাপিত হলো আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস উপলক্ষে বিশেষ কর্মশালা ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান।

কোভিড-১৯ এর স্বাস্থ্য সচেতনতা বিবেচনায় রেখে উক্ত অনুষ্ঠান অনলাইনে উদযাপন ও সরাসরি সম্প্রচার করা হয়।

হ্যালিফ্যাক্স সেন্ট্রাল লাইব্রেরির পল ও রেগান হলে অস্থায়ী শহিদ মিনার স্থাপন করা হয়। বর্তমান সময়োপযোগী স্বাস্থ্যবিধি মান্য করে নিরাপদ দূরত্বে অবস্থান করে শহিদ বেদীতে পুষ্পস্তবক অর্পণ করা হয়। এ সময় বাংলাদেশীদের পাশাপাশি কানাডিয়ান নাগরিকরাও বিমোহিত হন।

উক্ত অনুষ্ঠানে এবং সরাসরি ভিডিও কনফারেন্সে উপস্থিত ছিলেন হ্যালিফ্যাক্সে বসবাসরত কানাডিয়ান বাংলাদেশীগণ, বাংলাদেশী শিক্ষার্থীবৃন্দ এবং প্রভিন্সিয়াল সরকারের অনেক উচ্চপদস্থ কর্মকর্তাগণ।

সমবেত উপস্থিতিতে বাংলাদেশের জাতীয় সংগীত ও কানাডার জাতীয় সংগীত পরিবেশনের মাধ্যমে মূল অনুষ্ঠানের যাত্রা শুরু হয়। অনুষ্ঠানের শুরুতেই আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবসের প্রেক্ষাপটে বক্তব্য উপস্থাপিত হয়। কানাডিয়ানরা পরিচিত হন ঐতিহাসিক ১৯৫২ সালের ২১ ফেব্রুয়ারীর প্রেক্ষাপটের সাথে। তারা জানতে পারেন রফিক, জব্বার, বরকত, সালামসহ সকল ভাষাশহিদের আত্মত্যাগের কথা।

বাংলাদেশের প্রখ্যাত কবি ও সাহিত্যিক আসাদ চৌধুরী উক্ত অনুষ্ঠানের সরাসরি সম্প্রচারে যোগদান করেন এবং কানাডিয়ান বাংলাদেশী নতুন প্রজন্মের কাছে মাতৃভাষার গুরুত্ব নিয়ে আলোচনা করেন। সকলেই মন্ত্রমুগ্ধের মতো তার আলোচনা উপভোগ করেন।

বাংলাসহ সকল ভাষার প্রতি শ্রদ্ধা প্রদর্শনের নিমিত্তে পৃথিবীর বিভিন্ন ভাষাভাষী শিশু কিশোরদের নিজ নিজ ভাষায় পরিবেশনাও উক্ত অনুষ্ঠানে সম্প্রচারিত হয়।

এরপর বাংলাদেশের সংস্কৃতি, ঐতিহ্য ও মাতৃভাষা দিবসের পটভূমিতে উদযাপিত হয় মনোরম সাংস্কৃতিক সন্ধ্যা। এসব পরিবেশনায় কানাডিয়ান বাংলাদেশী শিশুদের অংশগ্রহণ ছিল চোখে পড়ার মত। দেশ থেকে দূরে থেকেও দেশের প্রতি তাদের মায়া, দেশের সংস্কৃতির প্রতি আকর্ষণ এবং নিজ ভাষার প্রতি মমতা সকলকে মুগ্ধ করে।

কোভিড-১৯ এর অনুশাসনের কথা বিবেচনায় রেখে বাংলাদেশ কমিউনিটি অ্যাসোসিয়েশন অফ নোভাস্কসিয়া (বিডিক্যান্স) এর প্রগতিশীল, সময়োপযোগী ও সুসংহত উদ্যোগের কারণেই বাংলাদেশ থেকে দূরে থেকেও হ্যলিফ্যাক্সের প্রবাসী বাংলাদেশীরা যেন কানাডার বুকে খুঁজে পেয়েছেন এক টুকরো বাংলাদেশ।

আর এভাবেই নোভাস্কসিয়ায় কানাডিয়ানদের মাঝে সম্প্রসারিত হচ্ছে বাংলাদেশের ঐতিহ্য ও সংস্কৃতি।

প্রতিবেদক: মোহাম্মদ আলী খান

শেয়ার করুন !
  • 24
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

এই ওয়েবসাইটের যাবতীয় লেখার বিষয়বস্তু, মতামত কিংবা মন্তব্য– লেখকের একান্তই নিজস্ব। somoyekhon.net-এর সম্পাদকীয় নীতির সঙ্গে এর মিল আছে, এমন সিদ্ধান্তে আসার কোনো যৌক্তিকতাই নেই। লেখকের মতামত, বক্তব্যের বিষয়বস্তু বা এর যথার্থতা নিয়ে somoyekhon.net আইনগত বা অন্য কোনো ধরনের কোনো প্রকার দায় বহন করে না।

Leave A Reply

error: Content is protected !!