একযোগে হেফাজত ও জঙ্গি সংগঠন আনসারের দায়িত্বে ছিলেন তারা

0

চট্টগ্রাম প্রতিনিধি:

চট্টগ্রামে জঙ্গি সংগঠন আনসার আল ইসলামের মোটিভেশনাল স্পিকারের দায়িত্ব পালনকারী ও একইসাথে হেফাজতে ইসলামে নেতৃত্বদানকারী শামীমুর রহমানকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশের কাউন্টার টেররিজম অ্যান্ড ট্রান্সন্যাশনাল ক্রাইম (​সিটিটিসি) ইউনিট।

মঙ্গলবার (১৫ জুন) রাতে নগরীর ফিরোজ শাহ কলোনীর বাসা থেকে তাকে গ্রেপ্তার করা হয়।

এর আগে গত ১১ জুন রাতে নগরীর খুলশী এলাকা থেকে কাউন্টার টেররিজম ইউনিট জঙ্গি সংগঠন আনসার আল ইসলামের তথ্য প্রযুক্তি বিশেষজ্ঞ শাখাওয়াত আলীকেও গ্রেপ্তার করে।

মূলত জঙ্গি সংগঠনের হয়ে সিরিয়ায় জঙ্গি প্রশিক্ষণ এবং যুদ্ধে অংশ নিয়ে চলতি বছরের ২২ মার্চ দেশে ফিরে আসে সে। দেশে ফিরেই আবারো জঙ্গি সংঠনকে সংগঠিত করতে শামীমুর রহমানের সঙ্গে যোগাযোগ শুরু করেন তিনি।

চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন পুলিশের কাউন্টার টেররিজম ইউনিটের উপ কমিশনার হাসান মো. শওকত জানান, সিরিয়া ফেরত আনসার আল ইসলামের তথ্য প্রযুক্তি বিশেষজ্ঞ শাখাওয়াত আলীর তথ্য অনুযায়ী মঙ্গলবার রাতে নগরীর ফিরোজ শাহ কলোনীর বাসা থেকে গ্রেপ্তার করা হয় অপর জঙ্গি নেতা শামীমুর রহমানকে।

স্থানীয় একটি মসজিদের খতিব শামীমের বাসাটিকেই জঙ্গি সংগঠন আনসার আল ইসলাম তাদের আস্তানা হিসাবে ব্যবহার করত। সেইসঙ্গে নতুন সদস্যদের মোটিভেশনাল স্পিকারের কাজ করতেন শামীম।

গ্রেপ্তার শাখাওয়াত প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে জানায়, ২০১৩ সালে ওই বাসায় বৈঠকের মাধ্যমে তিনি জঙ্গি সংগঠনে যোগ দেন। যেখানে উপস্থিত ছিল মামুন-আরিফ নামে তার দুই ভায়রা এবং নব্য জেএমবির প্রধান বরখাস্তকৃত মেজর জিয়া।

চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন পুলিশ (সিএমপি) কমিশনার সালেহ মোহাম্মদ তানভীর জানান, আটক শামীমুর রহমান বহুল আলোচিত কওমী মাদ্রাসাভিত্তিক সংগঠন হেফাজতে ইসলাম চট্টগ্রাম মহানগর শাখার সমাজকল্যাণ সম্পাদকের দায়িত্বে ছিলেন।

আরবিতে পারদর্শী হওয়ার কারণে জিহাদ সংক্রান্ত আরবি ভিডিও এবং বিভিন্ন লেখা বাংলায় অনুবাদ করে নতুন সদস্যদের মধ্যে সরবরাহ করতেন তিনি। এ অবস্থায় জঙ্গি সংগঠন আনসার আল ইসলামের সঙ্গে হেফাজতে ইসলামের আর কোনো নেতার সম্পৃক্ততা রয়েছে কি না তার অনুসন্ধানে নেমেছে পুলিশ।

শেয়ার করুন !
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

এই ওয়েবসাইটের যাবতীয় লেখার বিষয়বস্তু, মতামত কিংবা মন্তব্য– লেখকের একান্তই নিজস্ব। somoyekhon.net-এর সম্পাদকীয় নীতির সঙ্গে এর মিল আছে, এমন সিদ্ধান্তে আসার কোনো যৌক্তিকতাই নেই। লেখকের মতামত, বক্তব্যের বিষয়বস্তু বা এর যথার্থতা নিয়ে somoyekhon.net আইনগত বা অন্য কোনো ধরনের কোনো প্রকার দায় বহন করে না।

Leave A Reply

error: Content is protected !!