রাষ্ট্রীয় সফরে প্রধানমন্ত্রী আরব আমিরাত যাচ্ছেন ১৭ ফেব্রুয়ারি

0

সময় এখন ডেস্ক:

সংযুক্ত আরব আমিরাত সরকারের আমন্ত্রণে বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা দেশটির রাজধানী আবুধাবি সফরে যাচ্ছেন ১৭ ফেব্রুয়ারি। রাষ্ট্রীয় সফর শেষে আবার ১৯ তারিখ তিনি দেশে ফিরবেন বলে বিশ্বস্ত সূত্রে জানা গেছে।

প্রধানমন্ত্রীর এই সফরসূচি নিয়ে বাংলাদেশ দূতাবাসকে জিজ্ঞেস করা হলে তারা এখনো সফরসূচি পাননি বলে জানিয়েছেন। তবে এর আগে প্রধানমন্ত্রীর সফরের আনুষ্ঠানিকতা তত্ত্বাবধান করতে ইউএইতে নিযুক্ত বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত মোহাম্মদ ইমরান ঢাকা এসেছেন বলে জানা গেছে।

সফরকালে প্রধানমন্ত্রী আমিরাতের রাজধানী আবুধাবিতে ১৭ ফেব্রূয়ারি হতে ৫ দিনব্যাপি অনুষ্ঠিতব্য মধ্যপ্রাচ্য ও উত্তর আফ্রিকা অঞ্চলের একমাত্র সামরিক প্রদর্শনী ও কনফারেন্স ইন্টারন্যাশনাল ডিফেন্স এক্সিবিশান (IDEX) এ আগত অন্যান্য দেশের সরকার প্রধানদের সঙ্গে অংশ নেবেন বলে আশা করা হচ্ছে।

বিগত ২০১৭ সালে অনুষ্ঠিত এ দ্বিবার্ষিক প্রদর্শনীতে ৫৭টি দেশ অংশগ্রহণ করে এবং এতে ২০ বিলিয়ন দিরহামের সমরাস্ত্র সরবরাহ চুক্তি স্বাক্ষর হয়।

এবার আইডেক্স এর সিলভার জুবিলি এবং এতে আরো বেশি সংখ্যক দেশ, সরকার প্রধান, সামরিক বিশেষজ্ঞ ও সমরাস্ত্র নির্মাতা কোম্পানী অংশ নেবে বলে আশা করা হচ্ছে।

আমিরাত সফরকালে প্রধানমন্ত্রী সাইডলাইনে ইউএই কর্তৃপক্ষের সঙ্গে বাংলাদেশিদের ভিসা সমস্যাসহ নানা দ্বিপাক্ষিক সমস্যা নিয়ে আলোচনা করবেন বলে ধারণা করা হচ্ছে। ইউএই বাংলাদেশের নবনির্বাচিত সরকারকে সমর্থনদানকারী প্রথম সারির দেশ। একইসাথে এটি বাংলাদেশের দ্বিতীয় বৃহত্তম রেমিট্যান্স প্রেরণকারী দেশ। প্রধানমন্ত্রীর আসন্ন সফরকে কেন্দ্র করে আমিরাতে প্রবাসী বাংলাদেশিদের মধ্যে বইছে আনন্দ উত্তেজনা।

তারা আশা করছেন এ সফরকে ঘিরে ২০১২ সালের মধ্য অগাস্ট থেকে আমিরাতে বন্ধ থাকা ভিসার দুয়ার খোলার পথ সুগম হবে। তা না হলেও বাংলাদেশিদের জন্য অন্ততঃ আভ্যন্তরীন ভিসা ট্রান্সফার স্থায়ীভাবে খুলে দিলে প্রবাসীদের মধ্যে কিছুটা স্বস্তি আসবে।

প্রসঙ্গত, আরব আমিরাত গত ৬ বছর ধরে বাংলাদেশি শ্রমিক নেওয়া বন্ধ রেখেছে। গত বছরের ১৮ এপ্রিল দেশটির সঙ্গে একটি সমঝোতা স্মারক সইয়ের পর অনেকটা সময় পেরিয়ে গেলেও কোনো সম্ভাবনা দেখা যাচ্ছে না। এমন পরিস্থিতিতে প্রধানমন্ত্রীর এই সফর হয়তো বরফ গলাতে সহায়ক হবে বলে বিশ্লেষকরা মনে করছেন।

শেয়ার করুন !
  • 1
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

এই ওয়েবসাইটের যাবতীয় লেখার বিষয়বস্তু, মতামত কিংবা মন্তব্য– লেখকের একান্তই নিজস্ব। somoyekhon.net-এর সম্পাদকীয় নীতির সঙ্গে এর মিল আছে, এমন সিদ্ধান্তে আসার কোনো যৌক্তিকতাই নেই। লেখকের মতামত, বক্তব্যের বিষয়বস্তু বা এর যথার্থতা নিয়ে somoyekhon.net আইনগত বা অন্য কোনো ধরনের কোনো প্রকার দায় বহন করে না।

Leave A Reply