কোরআন পাঠরত অবস্থায় ২৭ শিক্ষার্থী অগ্নিকাণ্ডে নিহত

0

আন্তর্জাতিক ডেস্ক:

লাইবেরিয়ার রাজধানী মনরোভিয়ার পেয়নেসভিল এলাকার একটি ইসলামিক স্কুলে গত বুধবার ১৮ সেপ্টেম্বর ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় শিশুসহ ২৭ শিক্ষার্থী নিহত হয়েছে বলে জানা যায়। অগ্নিকাণ্ডের সময় স্কুলের শিক্ষার্থীরা শ্রেণিকক্ষে কোরআন পাঠ করছিলো। খবর আনাদুলো এজেন্সি।

দেশটির জাতীয় টেলিভিশনে ঘটনার বর্ণনা দিতে গিয়ে পুলিশের মুখপাত্র মুসেস কার্টার জানান, অগ্নিকাণ্ডের শিকার শিশু শিক্ষার্থীরা শ্রেণিকক্ষে কোরআন পড়ছিল। তবে অগ্নিকাণ্ডের সূত্রপাত হয় কীভাবে, তা এখনো জানা যায় নি। দেশটির এই অগ্নিকাণ্ড থেকে ২ শিক্ষার্থীসহ ১ শিক্ষক উদ্ধার হতে সক্ষম হয়েছেন।

অগ্নিকাণ্ডের এক প্রত্যক্ষদর্শী জানান, আগুনের শব্দে তিনি ঘুম থেকে জেগে ওঠেন এবং সবাই সাহায্যের জন্য এগিয়ে আসতে বলেন। আগুন এত ভয়াবহ ছিল যে, মনে হচ্ছিলো পুরে এলাকা লালবর্ণ ধারণ করেছে। সবকিছুই পুড়ে যাচ্ছে।

দেশটির সরকারি কর্মকর্তাদের তথ্য মতে অগ্নিকাণ্ডে মৃত্যুবরণকারীদের মধ্যে কয়েকজনের বয়স ১০ বছরের নিচে। তবে এর চেয়ে বেশি বয়সের শিশুও ছিল।

লাইবেরিয়ার প্রেসিডেন্ট জর্জ উইয়াহ অগ্নিকাণ্ডের ঘটনাস্থল পরিদর্শন এবং নিহতদের পরিবারের সঙ্গে দেখা করেন এবং সমবেদনা জ্ঞাপন করেন।

এক টুইট বার্তায় তিনি বলেন, গত রাতে পেয়নেসভিলে শহরের স্কুল ভবনটিতে ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ডে নিহত ছেলেমেয়েদের পরিবারের সদস্যদের প্রতি সমবেদনা জানাচ্ছি।

তিনি আরও বলেন, নিহতদের পরিবার এবং লাইবেরিয়ার সব মানুষের জন্য এটি সত্যিই একটি কঠিন সময়। আমি এই ঘটনায় দেশের গোটা ইসলামিক কমিউনিটির কাছে গভীরভাবে দুঃখপ্রকাশ করছি।

প্রাক্তন প্রেমিকের চিঠি পোড়াতে গিয়ে বাড়িতেই লাগল আগুন

কিছুদিন আগেই ব্রেক-আপ হয়েছে হয়েছে দু’জনের। রাগে প্রাক্তন প্রেমিকের দেওয়া কোনও জিনিসই আর ঘরে রাখতে চাননি তরুণী। তাই প্রাক্তন প্রেমিকের কাছে পাওয়া সব উপহারের পাশাপাশি তাকে দেয়া প্রেমপত্র গুলোও পুড়িয়ে ফেলতে চেয়েছিলেন তিনি।

কিন্তু এমনটা করতে গিয়ে নিজের বিপদ নিজেই ডেকে এনেছেন ওই তরুণী। প্রেমিকের লেখা সব চিঠি আগুনে পোড়াতে গিয়ে পুরো বাড়িতেই আগুন ধরে গেছে। খুব দ্রুত চারপাশে ছড়িয়ে পড়ে আগুন।

এই ঘটনায় কোনও হতাহতের খবর পাওয়া না গেলেও মোট চার হাজার ডলারের সম্পত্তি নষ্ট হয়েছে বলে জানা গেছে। যুক্তরাষ্ট্রের নেব্রাস্কার বাসিন্দা ওই তরুণীর রাগের কারণে ক্ষতি হয়েছে প্রতিবেশীদেরও।

কারণ ওই তরুণীর নিজের বাড়ির পাশাপাশি প্রতিবেশীদের বাড়ি এবং জিনিসপত্রও পুড়ে গেছে। প্রেমপত্রগুলো পোড়াতে গিয়ে আগুন লেগে যায় ঘরের কার্পেটে। তা থেকেই দ্রুত আগুন ছড়িয়ে পড়ে সর্বত্র।

শেয়ার করুন !
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

এই ওয়েবসাইটের যাবতীয় লেখার বিষয়বস্তু, মতামত কিংবা মন্তব্য– লেখকের একান্তই নিজস্ব। somoyekhon.net-এর সম্পাদকীয় নীতির সঙ্গে এর মিল আছে, এমন সিদ্ধান্তে আসার কোনো যৌক্তিকতাই নেই। লেখকের মতামত, বক্তব্যের বিষয়বস্তু বা এর যথার্থতা নিয়ে somoyekhon.net আইনগত বা অন্য কোনো ধরনের কোনো প্রকার দায় বহন করে না।

Leave A Reply

error: Content is protected !!