এক টেবিলে শেখ হাসিনা-ট্রাম্প-ম্যার্কেল-জাতিসংঘ মহাসচিব

0

সময় এখন ডেস্ক:

জাতিসংঘ সাধারণ অধিবেশনে যোগ দিতে এসে যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের সঙ্গে শুভেচ্ছা বিনিময় করলেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা, একই টেবিলে বসে মধ্যাহ্নভোজও করেছেন তারা।

জাতিসংঘের ৭৪তম সাধারণ অধিবেশনে যোগ দিতে বিশ্ব নেতারা এখন নিউ ইয়র্কে রয়েছেন। সম্মেলনে আসা বিভিন্ন দেশের সরকার ও রাষ্ট্রপ্রধানদের সন্মানে মঙ্গলবার দুপুরে মধ্যাহ্নভোজের আয়োজন করেন জাতিসংঘের মহাসচিব আন্তোনিও গুতেরেস।

সেখানেই শেখ হাসিনা ও ডোনাল্ড ট্রাম্পের শুভেচ্ছা বিনিময় হয় বলে সাংবাদিকদের জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রীর প্রেস সচিব ইহসানুল করিম।

টেলিভিশন ফুটেজে দেখা যাচ্ছে, জাতিসংঘ সদর দপ্তরের নর্থ ডেলিগেটস লাউঞ্জের মধ্যাহ্নভোজে বিভিন্ন নেতারা পরস্পরের সঙ্গে শুভেচ্ছা বিনিময় করছেন। এক সময় ট্রাম্প এগিয়ে আসেন বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রীর কাছে। তাদের মধ্যে শুভেচ্ছা বিনিময় ও আলাপ করতে দেখা যায়।

জার্মানির চ্যান্সেলর আঙ্গেলা মের্কেলসহ অন্যান্য নেতাদের সঙ্গে শেখ হাসিনাকে শুভেচ্ছা বিনিময় করতে দেখা যায়।

পরে জাতিসংঘ মহাসচিব নিজের টেবিলে শেখ হাসিনাকে নিয়ে বসেন। আন্তোনিও গুতেরেসের টেবিলে আরও বসেন ডোনাল্ড ট্রাম্প, অ্যাঙ্গেলা ম্যার্কেল।

পরে সম্মেলনে আসা সরকার ও রাষ্ট্রপ্রধান এবং বিভিন্ন দেশের প্রতিনিধিদের সন্মানে রাতে ডোনাল্ড ট্রাম্প আয়োজন করেন নৈশভোজের।

লোটে নিউ ইয়র্ক প্যালেসের ওই নৈশভোজেও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা যোগ দেন বলে জানান প্রেস সচিব।

ওবামা নোবেল পেল, আমারটা কোথায়: ট্রাম্প

যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প আক্ষেপ করে বলেছেন, তাকে কখনোই নোবেল পুরস্কার দেওয়া হয়নি। এটা ঠিক না। কাজটা পক্ষপাতহীন ও সুষ্ঠু হলে তিনি অনেক কিছুতেই নোবেল পেতেন। জাতিসংঘ সাধারণ পরিষদের অধিবেশনে সোমবার (২৩ সেপ্টেমবর) এ কথা বলেন ট্রাম্প। নোবেল পুরস্কার না পাওয়ার অভিযোগ ট্রাম্প আগেও করেছেন।

অথচ কোরিয়ান উপদ্বীপে শান্তি আনতে তার চেষ্টার জন্য তিনি নোবেল পুরস্কার পেতে পারেন বলে ধারনা ট্রাম্পের। অভিযোগ করে এই মার্কিন নেতা বলেন, বিভিন্ন বিষয়ে আমি নোবেল পুরস্কার পেতে পারতাম, যদি নিরপেক্ষভাবে তারা এটা দিত, কিন্তু কখনো তারা সেটা করবে না।

হোয়াইট হাউসে তার পূর্বসূরি বারাক ওবামার ২০০৯ সালে বিশ্বের সবচেয়ে এই মর্যাদাকর পুরস্কার পাওয়া নিয়ে বিস্মিত হওয়ার কথা জানিয়েছেন ট্রাম্প। আন্তর্জাতিক কূটনীতি জোরদার করা ও জনগণের পারস্পরিক সহযোগিতা বাড়াতে অসাধারণ চেষ্টার জন্য ওবামাকে নোবেল পুরস্কার দেয়া হয়েছিল।

ট্রাম্প বলেন, প্রেসিডেন্ট হিসেবে অভিষিক্ত হওয়ার পরই তারা ওবামাকে নোবেল দিয়েছেন। কিন্তু কেন তাকে নোবেল দেয়া হল, তা তিনি নিজেই জানতেন না। জাতিসংঘের সাধারণ অধিবেশনের ফাঁকে একটি দ্বিপাক্ষিক বৈঠকে পাকিস্থানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানের সঙ্গে কথা বলছিলেন ট্রাম্প।

এতে নরেন্দ্র মোদির নেতৃত্বাধীন ভারত অধিকৃত কাশ্মীরের স্বায়ত্ত্বশাসনের অধিকার কেড়ে নেয়ার পর উপত্যকাটির বর্তমান পরিস্থিতি নিয়ে তারা আলোচনা করছিলেন।

শেয়ার করুন !
  • 5.2K
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

এই ওয়েবসাইটের যাবতীয় লেখার বিষয়বস্তু, মতামত কিংবা মন্তব্য– লেখকের একান্তই নিজস্ব। somoyekhon.net-এর সম্পাদকীয় নীতির সঙ্গে এর মিল আছে, এমন সিদ্ধান্তে আসার কোনো যৌক্তিকতাই নেই। লেখকের মতামত, বক্তব্যের বিষয়বস্তু বা এর যথার্থতা নিয়ে somoyekhon.net আইনগত বা অন্য কোনো ধরনের কোনো প্রকার দায় বহন করে না।

Leave A Reply