১০ লিটার তেলের মধ্যে প্রায় ১ লিটারই চুরি!

0

সময় এখন ডেস্ক:

পেট্রোল পাম্পে তেল বিক্রির ক্ষেত্রে প্রতি ১০ লিটারে ৯০০ মিলি লিটার (১ লিটার থেকে ১০০ মিলি লিটার কম) চুরির প্রমাণ পেয়েছে বাংলাদেশ স্ট্যান্ডার্ডস অ্যান্ড টেস্টিং ইনস্টিটিউশন (বিএসটিআই)। জামালপুরের মেসার্স পেট্রোলিংক ফিলিং স্টেশনে অভিযান চালিয়ে বিএসটিআই এ ঘটনা ধরেছে।

ওজন ও পরিমাপে কারচু’পির অপরাধে এটিসহ মোট ৬টি পেট্রোল পাম্পের বিরু’দ্ধে মামলা দায়ের করেছে সরকারি এ সংস্থাটি।

রোববার (৩ নভেম্বর) জামালপুর, গাজীপুর ও টাঙ্গাইল জেলার বিভিন্ন এলাকায় এ অভিযান চালানো হয় এবং মামলা দায়ের করা হয়। বিএসটিআইয়ের উপ-পরিচালক (মেট্রোলজি) মো. রেজাউল করিম সরকার এসব তথ্য জানিয়েছেন।

তিনি জানান, সার্ভেইল্যান্স অভিযানের মাধ্যমে জামালপুর এলাকার মেসার্স পেট্রোলিংক ফিলিং স্টেশন তেল পরিমাপে প্রতি ১০ লিটারে অকটেন, পেট্রোল ও ২টি ডিজেল ডিসপেন্সিং ইউনিটে যথাক্রমে ৯০০, ৩৫০, ৪০০ ও ১৫০ মিলি লিটার করে কম প্রদান করা হয়।

এছাড়া মেসার্স দেশ ফিলিং স্টেশনের ১টি অকটেন ডিসপেন্সিং ইউনিট সিল ভা’ঙা অবস্থায় ও ৩টি আন্ডারগ্রাউন্ড ট্যাংক ক্যালিব্রেশন চার্টের মেয়াদো’ত্তীর্ণ থাকায় এবং মেসার্স শতাব্দী ফিলিং স্টেশনের ৩টি আন্ডারগ্রাউন্ড ট্যাংক ক্যালিব্রেশন চার্টের মেয়াদো’ত্তীর্ণ থাকায় প্রতিষ্ঠান ৩টির বিরু’দ্ধে মামলা দায়ের করা হয়।

শনিবার (২ নভেম্বর) গাজীপুর জেলার কালিয়াকৈর এলাকার মেসার্স ভূমি সিএনজি অ্যান্ড ফিলিং স্টেশন অকটেন ও ৩টি ডিজেল ডিসপেন্সিং ইউনিটে প্রতি ১০ লিটারে যথাক্রমে ৮০০, ৫৩০, ৪৯০ ও ৪২০ মিলি লিটার করে কম প্রদান করায় এবং

টাঙ্গাইল জেলার মির্জাপুর এলাকার মেসার্স মাছরাঙ্গা ফিলিং স্টেশনের ১টি অকটেন, ১টি পেট্রোল ও ৩টি ডিজেল ডিসপেন্সিং ইউনিট দিয়ে সিল ভে’ঙে তেল বিক্রয় করায়

এবং বাসাইল এলাকার মেসার্স এফ অ্যান্ড এফ ফিলিং স্টেশন অকটেন ও ডিজেল ইউনিটে পরিমাপে কম প্রদান করায় প্রতিষ্ঠান ৩টির বিরু’দ্ধে ‘ওজন ও পরিমাপ মানদণ্ড আইন-২০১৮’ অনুযায়ী মামলা দায়ের করা হয়।

বিএসটিআইয়ের এ অভিযানে সংস্থাটির সহকারী পরিচালক মো. মোন্নাফ হোসেনের নেতৃত্বে পরিদর্শক মো. লিয়াকত হোসেন ও মো. বিল্লাল হোসেন অংশগ্রহণ করেন।

শেয়ার করুন !
  • 48
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

এই ওয়েবসাইটের যাবতীয় লেখার বিষয়বস্তু, মতামত কিংবা মন্তব্য– লেখকের একান্তই নিজস্ব। somoyekhon.net-এর সম্পাদকীয় নীতির সঙ্গে এর মিল আছে, এমন সিদ্ধান্তে আসার কোনো যৌক্তিকতাই নেই। লেখকের মতামত, বক্তব্যের বিষয়বস্তু বা এর যথার্থতা নিয়ে somoyekhon.net আইনগত বা অন্য কোনো ধরনের কোনো প্রকার দায় বহন করে না।

Leave A Reply